The news is by your side.

শ্বাসরুদ্ধকর ম্যাচে ৫ রানে হারল বাংলাদেশ

0 47

 

ম্যাচটা দুলছিল পেন্ডুলামের মতো একবার বাংলাদেশের দিকে, আরেকবার ভারতের দিকে। অ্যাডিলেড ওভালে বৃষ্টি আসার আগ পর্যন্ত তো বাংলাদেশের জয়ের সম্ভাবনাই ছিল শতভাগ; কিন্তু বৃষ্টি এসে সব গুলিয়ে দিলো। ডাকওয়ার্থ অ্যান্ড লুইস সাহেবের বৃষ্টি আইনে যখন বাংলাদেশের লক্ষ্য দাঁড়ালো ১৬ ওভারে ১৫১। আর সেই লক্ষ্য তাড়া করতে গিয়ে তাসের ঘরের মতো ভেঙে পড়ল বাংলাদেশের ব্যাটিং লাইনআপ। শেষ পর্যন্ত হাত ফসকে বেরিয়ে গেল ভারতকে হারানোর সুযোগটি। বাংলাদেশ হারল ৫ রানে।

বৃষ্টির পর যখন খেলা শুরু হয় তখন শান্তর সঙ্গে ভুল বুঝাবুঝিতে রান আউট হন ২৭ বলে ৬০ রানের ঝোড়ো ইনিংস খেলা লিটন। লিটনের বিদায়ের পর ক্রিজে আসেন অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। এরপর দলীয় ৮৪ রানে ফের উইকেট হারায় বাংলাদেশ। ২৫ বলে ২১ রান করে শামির বলে সূর্যকুমারকে ক্যাচ দিয়ে ফিরে যান নাজমুল শান্ত।

এরপর সাকিব ও আফিফ মিলে ফের ঘুরে দাঁড়ানোর চেষ্টা করে। কিন্তু ইনিংসের ১২ তম ওভারে ৫ বলে ৩ রান করে আউট হন আফিফ হোসেন।  এরপর দলীয় ১০০ রানে ১২ বলে ১৩ রান করে আউট হন সাকিব। সাকিবের পরপরই সাজঘরের পথ ধরেন ইয়াসির রাব্বি। দলীয় ১০২ রানে ৩ বলে মাত্র ১ রান করে আউট হন তিনি। ইয়াসিরের পর মোসাদ্দেক এসে ১৩ তম ওভারের তৃতীয় বলে একটি ছক্কা মারেন। কিন্তু ওভারের পঞ্চম বলে বোল্ড হয়ে ফিরে যান সাজঘরে। দলীয় ১০৮ রানে ৬ উইকেট হারায় বাংলাদেশ।

এরপর ক্রিজে আসেন তাসকিন আহমেদ। তাসকিনকে সঙ্গে নিয়ে লড়াই চালিয়ে যান সোহান। শেষ ২ ওভারে ৩১ রান প্রয়োজন হয়ে বাংলাদেশের। ওভারের প্রথম বলেই হার্দিককে চার মারেন তাসকিন। ওভারের তৃতীয় বলে ছক্কা হাঁকান তাসকিন আহমেদ। চতুর্থ বলে সিঙ্গেল নেনে তাসকিন। ওভারের পঞ্চম বল ডট দেন সোহান। শেষ বলও ব্যাটে লাগাতে পারেননি সোহান। শেষ ওভারে জয়ের জন্য ২০ রান প্রয়োজন হয় বাংলাদেশের।

শেষ ওভারের প্রথম বলে ১ রান পায় বাংলাদেশ। ওভারের দ্বিতীয় বলে ছক্কা হাঁকান সোহান। শেষ চার বলে ১৩ রান প্রয়োজন হয় বাংলাদেশের। ওভারের তৃতীয় বল ডট দেন সোহান। ওভারের দ্বিতীয় বলে ২ রান নেন সোহান। শেষ ২ বলে ১১ রান প্রয়োজন হয় বাংলাদেশের। ওভারের পঞ্চম বলে চার মারেম সোহান। আর শেষ বলে ৭ রান হয় প্রয়োজন হয় বাংলাদেশের। শেষ বলে ১ রান নিলে ৫ রানে হার মানতে হয় বাংলাদেশকে।

নূরুল সাহান সোহান ১৪ বলে ২৫ ও তাসকিন আহমেদ ৭ বলে ১২ রান করে অপরাজিত থাকেন। ভারতের পক্ষে আর্শদীপ সিং ও হার্দিক পান্ডিয়া নেন ২টি করে উইকেট। এই জয়ের ফলে ৪ ম্যাচে ৬ পয়েন্ট নিয়ে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে এখন ভারত। আর ৪ ম্যাচে ৪ পয়েন্ট নিয়ে তিন নম্বরে বাংলাদেশ।

 

Leave A Reply

Your email address will not be published.