The news is by your side.

ইন্টারনেটের ধীরগতি সমাধান চেয়ে হাইকোর্টে রিট

0 31

 

মোবাইল ফোনের দুর্বল নেটওয়ার্ক ও ইন্টারনেটের ধীর গতি সমস্যার সমাধান করে মানসম্মত নেটওয়ার্ক ব্যবস্থা নিশ্চিতেব কর্তৃপক্ষের নিস্ক্রিয়তা চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে রিট করা হয়েছে।

হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় মঙ্গলবার মুঠোফোন গ্রাহক এসোসিয়েশনের সভাপতি মহিউদ্দিন আহমেদ, সাংবাদিক মেহেদী হাসান ডালিম এবং সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী মো. রাশিদুল হাসানের পক্ষে অ্যাডভোকেট ইশরাত হাসান রিটটি করেছেন।

এই রিটে আন্তর্জাতিক মান অনুযায়ী নেটওয়ার্ক শক্তিশালীকরণ এবং মূল্যায়নে প্রয়োজনীয় সুপারিশ করতে বুয়েটের দুইজন অধ্যাপক ও একটি মোবাইল অপারেটর কম্পানির প্রতিনিধির সমন্বয়ে একটি কমিটি বিশেষজ্ঞ কমিটি গঠনের নির্দেশনা চাওয়া হয়েছে।

রিট আবেদনে তথ্য যোগাযোগ ও প্রযুক্তি সচিব, বিটিআরসি চেয়ারম্যান এবং মোবাইল ফোন অপারেটর চারটি প্রতিষ্ঠান গ্রামীণ, রবি, বাংলালিংক ও টেলিটকের প্রধান নির্বাহীকে বিবাদী করা হয়েছে।

এ বিষয়ে গতবছর ২৮ নভেম্বর আইনি নোটিশ পাঠানোর পরও সেবার মান উন্নতি না হওয়ায় এ রিট আবদেন করা হয় বলে জানিয়েছেন আইনজীবী।

আইনজীবী ইশরাত হাসান জানান, দুর্বল নেটওয়ার্ক এবং ইন্টারনেটের ধীর গতির কারণে মোবাইল ফোন গ্রাহকরা মারাত্মক ভোগান্তিতে আছেন। গ্রাহকের কাছ থেকে যে পরিমাণ খরচ নেওয়া হয় সে তুলনায় মোবাইল ফোন কম্পানিগুলো সেবা দিচ্ছে না। মোবাইল ফোন এবং ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা বৃদ্ধি পেলেও মান সম্মত সেবা দিতে পারছে না। ২০২০ সালের এক জরিপে দেখা গেছে, ডিজিটাল সেবার মান নিশ্চিতকারী দেশগুলোর মধ্যে বাংলাদেশের অবস্থান তালিকায় শেষের দিকে। একারণেই তাদের নোটিশ দেওয়া হয়েছিল। এতেও কাজ না হওয়ায় হাইকোর্টে রিট আবেদন করা হয়েছে।

 

 

 

Leave A Reply

Your email address will not be published.