The news is by your side.

মৈত্রীর জাহাজ ভাসবে আজ দুই বাংলায়

0 204

 

আজ ঢাকা ও কলকাতা থেকে যাত্রীবাহী দুইটি ক্রুজ শিপ ছেড়ে যাওয়া ও আসার মধ্য দিয়ে শুরু হচ্ছে বাংলাদেশ-ভারতের মধ্যে প্রথম যাত্রীবাহী নৌ-চলাচল। বাংলাদেশ-ভারত নৌপ্রটোকল চুক্তির আওতায় দুই দেশের নৌ-ভ্রমণে ইচ্ছুক পর্যটকদের যাতায়াতের সুবিধার্থে সুন্দরবনের মধ্য দিয়ে ঢাকা-কলকাতা নদীপথে চলবে এই জাহাজ।

 আজ শুক্রবার বিকাল ৫টায় নারায়ণগঞ্জের পাগলায় মেরিএন্ডারসন ভিআইপি ঘাট থেকে যাত্রী নিয়ে কলকাতার উদ্দেশে ছেড়ে যাবে বিআইডব্লিউটিসির নিজস্ব অত্যাধুনিক ক্রুজ শিপ এমভি মধুমতি। অপরদিকে একই সময় কলকাতা থেকে ঢাকার উদ্দেশে যাত্রী নিয়ে ছেড়ে আসবে ভারতের ক্রুজ শিপ মেসার্স আরভি বেঙ্গল গঙ্গা।

বিআইডব্লিউটিসি সূত্র জানায়, বিকালে মেরিএন্ডারসন ভিআইপি ঘাটে ক্রুজ শিপ এমভি মধুমতির যাত্রা আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন করবেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল। বিশেষ অতিথি থাকবেন নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী ও বেসরকারি বিমান পরিবহন ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী মো. মাহবুব আলী।

গতবছর বাংলাদেশের নৌপরিবহন সচিব আবদুস সামাদ ও ভারতের জাহাজ মন্ত্রণালয়ের সচিব গোপাল কৃষ্ণর মধ্যে স্বাক্ষরিত বাংলাদেশ-ভারত নৌপ্রটোকল চুক্তির আওতায় দুই দেশের সঙ্গে সরাসরি এই যাত্রীবাহী জাহাজ চলাচল করছে। এজন্য নৌ-রুট নির্ধারণ করা হয়েছে নারায়ণগঞ্জের পাগলা থেকে বরিশাল-মোংলা-সুন্দরবন-আন্টিহারা হয়ে ভারতের হলদিয়া দিয়ে কলকাতা বন্দর। প্রসঙ্গত, বাংলাদেশ-ভারতের মধ্যে বিমান, রেল, পণ্যবাহী শিপ ও বাসের পর আজ চালু হচ্ছে যাত্রীবাহী এই জাহাজ চলাচল।

সূত্র জানায়, ঢাকা-কলকাতা যাত্রীবাহী ক্রুজ শিপে চলাচল করতে দুই দেশের পর্যটকদের জন্য ভাড়া নির্ধারণ করা হয়েছে: দুইজনের ফ্যামিলি স্যুট ১৫ হাজার টাকা, দুইজনের ডিলাক্স শ্রেণি ১০ হাজার টাকা, যাত্রীপ্রতি ইকোনমি চেয়ার ৮ হাজার টাকা, যাত্রীপ্রতি প্রথম শ্রেণি ৫ হাজার টাকা ও যাত্রীপ্রতি সুলভ শ্রেণি ১৫০০ টাকা। .

Leave A Reply

Your email address will not be published.