The news is by your side.

মেসি-এমবাপের ঝলকে দুর্দান্ত জয় পিএসজির

0 141

নেইমারকে বিশ্রাম দিয়ে লিওনেল মেসি ও কিলিয়ান এমবাপ্পের সঙ্গে কার্লোস সোলেরকে নিয়ে আক্রমণ সাজান পিএসজি কোচ ক্রিস্তফ গালতিয়ের।লিওনেল মেসি ও কিলিয়ান এমবাপের দারুণ বোঝাপোড়ায় ৩-০ গোল ব্যবধানের জয় পায় দলটি। দুর্দান্ত খেলে দুজনই গোলের দেখা পেয়েছেন, একে অপরকে অ্যাসিস্টও করেছেন। এই জয়ে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষস্থান আরও মজবুত করল ক্রিস্তফ গালতিয়ের দল।

নেইমার না থাকলেও অ্যাজাক্সিওর রক্ষণে পিএসজির আক্রমণের কমতি ছিল না। বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই সেই আক্রমণে নেতৃত্ব দেন মেসি। আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড ১৩ মিনিটে গোলও পেয়ে যেতে পারতেন। কিন্তু অ্যাজাক্সিওর গোলকিপার বেঞ্জামিন লিরয়ের অবিশ্বাস্য এক সেভের কারণে গোলবঞ্চিত হন মেসি। দুর্দান্ত এক ফ্রি–কিকই নিয়েছিলেন তিনি। সেই ফ্রি–কিক আবার অ্যাজাক্সিওর এক খেলোয়াড়ের গায়ে লেগে দিক বদলায়। উল্টো দিকে ঝাপ দিতে গিয়েও নিজেকে সামলে বলের দিকেই ডাইভ দেন লিরয়। বলে হাত লাগিয়ে বাইরে পাঠিয়ে দেন তিনি।

অবশেষে পিএসজিকে কাঙ্খিত গোল এনে দেন এমবাপ্পে। বক্সের বাইরে থেকে মেসির রক্ষণচেরা পাসে বল পেয়ে যান ফরাসি স্ট্রাইকার। ২৪ মিনিটে বক্সের ঠিক মাঝখান থেকে অসাধারণ এক চিপে অ্যাজাক্সিও গোলকিপার বেঞ্জামিন লিরয়ের মাথার ওপর দিয়ে বল জালে পাঠান তিনি। এবারের ফ্রেঞ্চ লিগ ‘আঁ’তে এটি তাঁর নবম গোল। আর মেসির এটা লিগে অষ্টম অ্যাসিস্ট।

প্রথমার্ধে অবশ্য তরুণ এমবাপ্পে দু’বার ভুল করেন। সুযোগ হারান গোল করার। ছোট জয়েই তাই শেষ পর্যন্ত মাঠ ছাড়ার পথে এগোতে থাকে প্যারিসের দলটি।

তবে ৭৮ মিনিটে মেসির ঋণ শোধ করেন এমবাপ্পে। আর্জেন্টাইন তারকাকে দিয়ে গোল করিয়ে দলকে লিড এনে দেন ২-০ গোলের। এর চার মিনিট বাদেই এমবাপ্পে দলের পক্ষে তৃতীয় গোল করেন। এবারও তার গোলে সহায়তা দেন মেসি। ঋণ শোধের খেলায় এমবাপ্পে তাই ঋণীই থেকে গেলেন।

এই জয়ে ১২ ম্যাচে ৩২ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষস্থানটা মজবুত করেছে পিএসজি। দ্বিতীয় স্খানে থাকা লরাঁর পয়েন্ট ১১ ম্যাচে ২৬।

Leave A Reply

Your email address will not be published.