The news is by your side.

বাংলালিংক ও যমুনা ব্যাংকের কাছে ৫ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ  চেয়ে সাকিবের আইনি নোটিশ

প্রতিষ্ঠান দুটির শুভেচ্ছাদূত ছিলেন সাকিব।

0 54

 

 

মোবাইল নেটওয়ার্ক অপারেটর বাংলালিংক ও বেসরকারি যমুনা ব্যাংকের কাছে ৫ কোটি ৮০ লাখ ৫০ হাজার টাকা ক্ষতিপূরণ চেয়েছেন সাকিব আল হাসান। সে জন্য রবিবার প্রতিষ্ঠান দুটিকে আইনি নোটিশ পাঠিয়েছেন তিনি।

প্রতিষ্ঠান দুটির শুভেচ্ছাদূত ছিলেন সাকিব। তবে চুক্তির মেয়াদ শেষ হয়ে যাওয়ায় এখন তাদের হয়ে আর কাজ করেন না বাংলাদেশের টেস্ট অধিনায়ক। সাকিব অভিযোগ করেছেন, এখনো তার ছবি ব্যবহার করে প্রচারণা চালাচ্ছে বাংলালিংক ও যমুনা ব্যাংক।

রবিবার সাকিবের পক্ষে তার আইনজীবী ব্যারিস্টার আশরাফুল হাদী রেজিস্ট্রি ডাকযোগে প্রতিষ্ঠান দুটির কাছে এ আইনি নোটিশ পাঠিয়েছেন। সেখানে ৭ দিনের আলটিমেটাম দিয়ে বলা হয়েছে, এ সময়ের মধ্যে বাংলালিংক ও যমুনা ব্যাংকের এটিএম বুথসহ বিভিন্ন জায়গায় থাকা সাকিব আল হাসানের ছবি, ব্র্যান্ড, স্বাক্ষর সব প্রত্যাহার করতে হবে। অন্যথায় আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

নোটিশে আরও বলা হয়, সাকিব আল হাসানের ব্র্যান্ড ইমেজ নিজেদের ব্যবসায়িক কাজে সীমিত ব্যবহার করতে পারবে বলে বাংলালিংক ডিজিটাল কমিউনিকেশন লিমিটেডের সঙ্গে ২০১৪ সালের ২১ জানুয়ারি চুক্তি করেন এই ক্রিকেটার। শর্ত অনুযায়ী ২০১৬ সালের ২০ জানুয়ারি চুক্তির মেয়াদ শেষ হয়। কিন্তু এখনো প্রতিষ্ঠানটি সাকিবের ছবি, ব্র্যান্ড ও স্বাক্ষর সম্বলিত ছবি ব্যবহার করছে। এ কারণে নোটিশ দেওয়া হয়েছে।

 

Leave A Reply

Your email address will not be published.