The news is by your side.

ধর্ম অবমাননা:  হৃদয় মণ্ডলের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ আদালতে মিথ্যা প্রমাণিত

0 53

মুন্সিগঞ্জ সদর উপজেলার বিনোদপুর রাম কুমার উচ্চবিদ্যালয়ের বিজ্ঞান ও গণিতের শিক্ষক হৃদয় চন্দ্র মণ্ডলকে ধর্ম অবমাননার মামলা থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় মুন্সিগঞ্জ আমলি আদালত-১-এর বিচারক জশিতা ইসলাম তাঁকে অব্যাহতির আদেশ দেন।

২২ মার্চ ওই বিদ্যালয়ের  অফিস সহকারী মো. আসাদ বাদী হয়ে ধর্ম অবমাননার অভিযোগে হৃদয় মণ্ডলের বিরুদ্ধে মামলা করেন।

ধর্ম অবমাননার মামলা থেকে অব্যাহতি পাওয়ার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন হৃদয় মণ্ডলের আইনজীবী শাহীন মোহাম্মদ আমানউল্লাহ। তিনি বলেন, ৮ আগস্ট পুলিশের দেওয়া চূড়ান্ত প্রতিবেদন আদালতে জমা দেওয়া হয়। প্রতিবেদনে হৃদয় মণ্ডলের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ মিথ্যা প্রমাণিত হয়। হৃদয় মণ্ডল আদালতে হাজিরা দিতে এলে বিষয়টি আবার আদালতে তোলা হয়। সেখানে মামলার বাদী ও বিবাদী উপস্থিত ছিলেন। বাদীর কোনো আপত্তি না থাকায় আদালতের বিচারক তাঁকে মামলা থেকে অব্যাহতির আদেশ দেন।

মামলা থেকে অব্যাহতি পাওয়ার পর বুধবার হৃদয় চন্দ্র মণ্ডল  বলেন, ‘আমি একজন শিক্ষক। একটি মিথ্যা অভিযোগে আমাকে নানাভাবে হয়রানি করা হয়েছে। ১৯ দিন জেল খাটতে হয়েছে। মানুষের চোখে ছোট হতে হয়েছে। ভেতরে চাপা কষ্ট ছিল। সব সময় অশান্তিতে ভুগতাম। অপরাধ না করেও অপরাধী ছিলাম। আজকে আমার ওপর আনা সব অভিযোগ মিথ্যা প্রমাণিত হয়েছে। সব দোষ থেকে মুক্ত হয়েছি। এখন মুক্ত বাতাসে ঘুরে বেড়াতে পারব। সবাইকে বলতে পারব, আমি অপরাধী নই। আমি অপরাধ করিনি।’

হৃদয় মণ্ডল আরও বলেন, জামিনে বেরিয়ে আসার পর তাঁর বাড়ির ফটকে দাঁড়িয়ে হুমকি-ধমকি দেওয়া হতো। ভয়ে তিনি ঘর থেকে বের হতেন না। তিনি জানান, প্রতিবেশীসহ সবার সঙ্গে মিলেমিশে থাকতে চান তিনি। ২৪ বছর শিক্ষকতা করেছেন। সাড়ে পাঁচ বছরের মতো চাকরির বয়স আছে। বাকি জীবন সম্মান নিয়ে বাঁচতে চান তিনি।

Leave A Reply

Your email address will not be published.