The news is by your side.

 ‘আতশকাঁচ দিয়েও কিছু দেখতে পেলাম না!’ রণবীরের নগ্ন ছবি দেখে হতাশ টুইঙ্কল খান্না

0 27

বিগত কয়েকদিন ধরেই নেটদুনিয়ায় চর্চার অন্যতম কেন্দ্রবিন্দু হয়ে উঠেছেন বলিউড অভিনেতা রণবীর সিং। নেপথ্যে তাঁর নগ্ন ফটোশুট। আচমকাই সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রকাশ্যে আসে রণবীরের বেশ কয়েকটি ছবি। যেখানে একেবারে নগ্ন রূপে দেখা যায় অভিনেতাকে।

সাহসীকতার চরম পর্যায়ে পৌঁছে নেটিজেনদের প্রশংসা কুড়িয়েছেন। বাহবার সঙ্গে জুটেছে কটাক্ষও।

রণবীরের ‘আপত্তিকর’ ফটোশুট দেখে চোখের আরাম করতে চেয়েছিলেন বিদ‍্যা বালান। তবে নিন্দুকরা যাই বলুক না কেন, বলিউডের অন্যান্য তারকারা কিন্তু রণবীরের পাশেই রয়েছেন এবং প্রশংসা করেছেন তাঁকে। এই যেমন, টুইঙ্কল খান্না আফশোস করলেন, কিছু দেখাই যাচ্ছে না বলে! রণবীরের এই ফটোশুটের মধ্যে একেবারেই খুঁজে পেলেন না কোনও বিতর্ক। ফটোশুট বিতর্ক নিয়ে সোশ‍্যাল মিডিয়ায় বড়সড় একটি বার্তা দিয়েছেন টুইঙ্কল। সেখানে বিশ্বের প্রথম ‘নগ্নতাবাদী পাড়া’র উল্লেখ করেছেন তিনি, যেটা তৈরি হয়েছিল থানে তে ১৯৮১ সালে। সেখানে পোশাক পরার অনুমতি ছিল না, চশমাটুকু বাদে।

ব্যাপারটা একটু খোলসা করে বলা যাক। অভিনয় থেকে অনেক আগেই নিজেকে দূরে সরিয়ে নিয়ে এসেছেন টুইঙ্কল। এখন তাঁর কাছে লেখাই ধ্যান-জ্ঞান। একটি সংবাদপত্রের লেখার কারণে, রণবীর নগ্ন ফটোশুট খুবই মন দিয়ে দেখেছেন। টুইঙ্কল লিখলেন, ‘অনেক জুম করে রণবীরকে দেখার চেষ্টা করেছি। কিছুই দেখতে পেলাম না। এটাকে মোটেই নগ্ন ছবি বলা যাবে না। আমি তো দূরবীণ লাগিয়েও দেখতে পেলাম না রণবীরের শরীরের গোপন কিছু! কেন যে নিন্দা হচ্ছে। আমি তো হতাশ!’

টুইঙ্কল মজা করে বলেন, ‘আমি যখন রণবীরের ছবি দেখছিলাম, তখন টুক করে আমার ছেলে আরভ চলে আসে। খুব লজ্জা পেয়ে যায়। এটাই একটা মজার কাণ্ড।’

এদিকে ‘পেপার’ ম্যাগাজিনের নগ্ন ফটোশুট নিয়ে তর্ক-বিতর্কের মাঝেই ফের ক্যামেরার সামনে নগ্ন হওয়ার প্রস্তাব পেয়েছেন রণবীর। পেটা অর্থাৎ People for the Ethical Treatment of Animal-এর তরফ থেকে এসেছে এই প্রস্তাব দিয়ে একটি চিঠি পাঠানো হয়। চিঠিতে লেখা হয়, “পেপার ম্যাগাজিনে আপনার নগ্ন ফটোশুট দেখে দারুণ লেগেছে। তাই আমরা চাই, পেটার হয়ে এরকমই একটা ফটোশুট করুন। যেখানে মানুষকে উদ্ভুত করুন নিরামিষ খাবার খাওয়ার জন্য।” চিঠির সঙ্গে হলিউড অভিনেত্রী পামেলা আন্ডারসনের ছবি উদাহরণ হিসেবেও পাঠিয়েছে পেটা। কারণ, পেটার হয়ে পামেলা একটি নগ্ন ফটোশুট করেছিলেন।

 

 

Leave A Reply

Your email address will not be published.