The news is by your side.

সংবাদ শিরোনাম

ইনিংস ব্যবধানে বড় জয় বাংলাদেশের

'বাংলাদেশের উইকেট-কন্ডিশন চেনা। স্পিন খেলতে আমরা শিখে গেছি।' এই ছিল বাংলাদেশের বিপক্ষে মিরপুর শেরেবাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামে ম্যাচ শুরুর আগে জিম্বাবুয়ের বক্তব্য।যদিও তারা…

Highlights

ডাকসু : বরাদ্দকৃত ৫ লাখ টাকার এক টাকাও তুলতে পারেননি ভিপি নুর!

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) মেয়াদ শেষ হতে আর মাত্র দেড় মাস বাকি। ১০ মাসেও ডাকসু ভিপির জন্য বরাদ্দকৃত ৫ লাখ টাকার এক টাকাও তুলতে পারেননি ভিপি নুরুল হক নুর। নিজের বরাদ্দের একটি টাকাও ব্যয় করতে পারেননি এই ছাত্র প্রতিনিধি। ডাকসু ভিপির অভিযোগ, বরাদ্দকৃত অর্থ উত্তোলনে তিনি আবেদন করেছিলেন। কিন্তু ছাত্রলীগের প্যানেল থেকে নির্বাচিত ডাকসুর সাধারণ সম্পাদক (জিএস) গোলাম রাব্বানী ও সহসাধারণ সম্পাদক (এজিএস) সাদ্দাম হোসেনের ‘অদৃশ্য প্রভাবের’ কারণে টাকা তোলা সম্ভব হয়নি। তবে নুরের অভিযোগ…

শাড়িতে বসন্ত, নান্দনিকতার ছোঁয়া  

নিজস্ব প্রতিবেদক শিমুল পলাশ এর রঙিন ছোঁয়ায় দরজায় কড়া নাড়ছে বসন্ত।বসন্তের প্রথম দিন -পহেলা ফাল্গুনকে বরণ করতে বাঙালির ঘরে- বাইরে চলছে নানা আয়োজন। আয়োজনের পুরোভাগে থাকছে পছন্দের পোশাকে নিজেকে সাজিয়ে তোলার প্রস্তুতি। বাঙালি নারীদের কাছে পহেলা ফাল্গুন মানেই পছন্দের প্রিয়  শাড়িতে নিজেকে অনন্য করে তোলা। প্রিয় শাড়িতে বসন্ত বরণের কথা মাথায় রেখেই  ক্ল্যাসিক কার্ভস বাংলাদেশ তাদের অনলাইন পেইজ ও গ্রুপ এ বাজারে এনেছে আরামদায়ক হ্যান্ডলুম কটনে  হ্যান্ড পেইন্টিং এর বাহারি শাড়ি। প্রতিটি শাড়িতে ভিন্নমাত্রায়…

১৫ শতাংশ জনসমর্থন নিয়ে মেয়রের চেয়ারে বসতে যাচ্ছেন আতিকুল,তাপস

আওয়ামী লীগের প্রার্থী আতিকুল ইসলাম ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনে মোট ভোটারের মাত্র ১৪ দশমিক ৮৪ শতাংশের সমর্থন নিয়ে মেয়রের চেয়ারে বসতে যাচ্ছেন। অন্যদিকে ঢাকা দক্ষিণে মোট ভোটারের ১৭ দশমিক ৩০ শতাংশের সমর্থন নিয়ে মেয়রের দায়িত্ব নিচ্ছেন আওয়ামী লীগের শেখ ফজলে নূর তাপস। ভোট পড়ার হার উত্তরে ২৫ দশমিক ৩০ শতাংশ এবং দক্ষিণে ২৯ শতাংশ। অতীতের যেকোনো সময়ের তুলনায় এবার কমসংখ্যক ভোটারের সমর্থন নিয়ে মেয়রের দায়িত্ব নিতে হচ্ছে ক্ষমতাসীন দলের দুই প্রার্থীকে। বিশ্লেষকেরা ভোটের প্রতি আগ্রহ কমে যাওয়ার কয়েকটি কারণের…

ডিএসসিসি নির্বাচন: ক্ষমতাসীন দলের প্রার্থী হওয়ায় এগিয়ে তাপস ,ইশরাকের হাতিয়ার ঢাকাইয়া সমর্থন

বিশেষ প্রতিবেদন আধুনিক উন্নত বাসযোগ্য নগর গরবার বহুমাত্রিক প্রতিশ্রুতি আর অঙ্গীকারের মধ্য দিয়ে প্রচার-প্রচারণা ও গণসংযোগ শেষ। প্রতীক্ষা পহেলা ফেব্রুয়ারি ভোট শুরুর চূড়ান্ত মাহেন্দ্রক্ষনের। ক্ষমতাসীন দলের প্রার্থী হওয়ায় সঙ্গত কারণেই শেখ ফজলে নূর তাপসের হালে হাওয়া বেশী লেগেছে। টানা দুই মেয়াদে ধানমন্ডি সংসদীয় আসনের সংসদ সদস্য হওয়ায় ভোটারদের কাছে নতুন করে পরিচয় করিয়ে দেয়ার খুব একটা প্রয়োজন হয়নি। পারিবারিক ও দলীয় পরিচয়ের পাশাপাশি ব্যক্তিগত ইমেজ ও ভোটারদের একটি বড় অংশকে আস্থা খুঁজে পেতে সহায়তা করেছে।…

- Advertisement -

দিল্লি নির্বাচন:   রাজপথে অস্ত্র প্রদর্শনী!

উপগ্রহ ধ্বংসকারী অস্ত্র ‘শক্তি’। ‘ধনুষ’ কামান। ‘অ্যাপাচে-চিনুক’ হেলিকপ্টার। তারই মধ্যে হঠাৎই বায়ুসেনার ট্যাবলোয় প্রোটোটাইপ রাফাল বিমানের। দর্শকদের হাততালির মধ্যেই কংগ্রেসের সভানেত্রী সনিয়া গাঁধীর সামনে দিয়ে চলে গেল সেটি। লোকসভা নির্বাচনে কংগ্রেসের প্রচারের অন্যতম অস্ত্র ছিল রাফাল।  কুচকাওয়াজে রাফালের একটি মডেল তুলে ধরেই শক্তি প্রদর্শন করল মোদী সরকার। আর রাফাল নিয়ে যিনি প্রতিবাদে নেমেছিলেন, সেই রাহুল গাঁধী দিল্লিতে থেকেও অনুপস্থিত কুচকাওয়াজে। বিজেপির দাবি, রাহুল এখন দলের সভাপতি নন। দ্বিতীয় সারিতে বসতে…

মোদী মিথ্যে কথা বলছেন,অসমে ডিটেনশন ক্যাম্প তৈরি হচ্ছে!

প্রসঙ্গ- ডিটেনশন ক্যাম্প।  নরেন্দ্র মোদী বলেছিলেন -‘ঝুট, ঝুট, ঝুট’। অর্থাৎ ‘মিথ্যে মিথ্যে মিথ্যে’। দাবি করেছিলেন, ‘দেশে একটিও ডিটেনশন সেন্টার নেই’। পুরোটাই মিথ্যে। কংগ্রেস এবং শহুরে মাওবাদীরা মিথ্যে ও উদ্দেশ্যমূলক ভাবে প্রচার করছে বলে মন্তব্য করেছিলেন মোদী। ডিটেনশন সেন্টার নিয়ে প্রধানমন্ত্রী এ কথা বলেছিলেন রবিবার। রাহুল এ দিন মোদীর সেই মন্তব্যের ভিডিয়োর একটি অংশ এবং একটি আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যমের প্রতিবেদন শেয়ার করেন টুইটারে। অসমের গোয়ালপাড়ার মাটিয়াতে যে ডিটেনশন ক্যাম্প তৈরি হচ্ছে, ওই…

 বিক্ষোভকে ‘মুসলিম অভ্যুত্থান’ হিসেবে দেখছে বিজেপি

ভারত জুড়ে বিক্ষোভ চলছেই। বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ছে নতুন নতুন রাজ্যে। ১৪৪ ধারা, গুলি, লাঠিচার্জ করেও দমন করা যাচ্ছে না বিক্ষোভ। এমন অবস্থায় বিজেপি নেতৃত্ব নিয়মিতভাবে এই বিক্ষোভকে ‘মুসলিম অভ্যুত্থান’ হিসেবে তুলে ধরার চেষ্টা করছে। আনন্দবাজারের প্রতিবেদনে বলা হয়, বিরোধীরা অভিযোগ করছেন, নতুন নাগরিকত্ব আইনের বিরুদ্ধে দেশ জুড়ে প্রতিবাদকে বিজেপি শুধুই মুসলিমদের বিক্ষোভ হিসেবে তুলে ধরতে চাইছে। ফলে বেছে বেছে মুসলিম বিক্ষোভকারীদের তথা দিল্লিতে পুলিশ কঠোর দমন নীতি নিচ্ছে। প্রথমে জামিয়া মিলিয়া ইসলামিয়া, আলিগড়…

- Advertisement -

সর্বশেষ সংবাদ

Newsletter

- Advertisement -

আন্তর্জাতিক

জাতীয়

রাজনীতি

অর্থনীতি