The news is by your side.

ভ্যালেন্টাইন্স ডে-তে সাতপাকে বাঁধা পড়ছেন না নেহা -আদিত্য !

0 196

 

 

বছরের প্রথম হেভিওয়েট বিয়ে দেখার আশায় দিন গুনছেন সবাই। গায়িকা নেহা কক্কর এবং গায়ক-সঞ্চালক আদিত্য নারায়ণের বিয়ে নিয়ে সরগরম বলিউডও। সংবাদমাধ্যম থেকে শুরু করে সোশ্যাল মিডিয়া… রটছে হাজারও জল্পনা। এরই মাঝে বিস্ফোরক মন্তব্য আদিত্যর বাবা, গায়ক উদিত নারায়ণের।

দিন দু’য়েক আগে এক সাক্ষাৎকারে উদিত যা বললেন তাতে হতাশ নেটাগরিকরা। গায়ক স্পষ্ট ভাবেই জানিয়ে দেন, আগামী ভ্যালেন্টাইন্স ডে-তে মোটেও সাতপাকে বাঁধা পড়ছেন না তাঁরা। যে রিয়েলিটি শো-তে একসঙ্গে কাজ করেন নেহা-আদিত্য, সেই চ্যানেল থেকেই টিআরপি বাড়ানোর জন্য গুজব বানানো হয়েছিল। এককথায় বলতে গেলে নেহা-আদিত্যর বিয়ের খবর ‘পাবলিসিটি স্টান্ট’ ছাড়া আর কিচ্ছু নয়।

তবে যে মঞ্চে বাবা-মায়েদের অবধি ডেকে এত প্রেম বিনিময়, দু’বাড়ির কথোপকথন… সবটাই আদপে লোক দেখানো? উদিত বললেন, “আদিত্য আমাদের একমাত্র ছেলে। ওর বিয়ে দেখার জন্য অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছি আমরা। যদি এই বিয়ের খবর সত্যি হত, তাহলে আমি এবং আমার স্ত্রী এই পৃথিবীর সবচেয়ে সুখী মানুষ হতাম। কিন্তু আদিত্য এখনও পর্যন্ত এ ব্যাপারে আমাদের কিচ্ছু জানায়নি। নেহা খুব ভাল মেয়ে। ও আমাদের বাড়ির বউ হলে খুব খুশি হব আমি।” যদিও গোটা ঘটনা নিয়ে মুখে কুলুপ এঁটেছেন নেহা-আদিত্য।

দিন পনেরো আগে এক সাক্ষাৎকারে নেহার উচ্ছ্বসিত প্রশংসা করে উদিত বলেছিলেন, “নেহা খুব মিষ্টি মেয়ে। ওরা বিয়ে করলে আমার কোনও অসুবিধে নেই। ভালই হবে। গানবাজনার পরিবারে আরও এক গায়িকা যুক্ত হবে।”কিন্তু এ বার উদিতের গলায় উল্টোপুরাণ! সত্যি স্বীকার করেই নিলেন তিনি।

হিমাংশু কোহালির সঙ্গে ব্রেকআপের পর হতাশায় ডুবে গিয়েছিলেন নেহা। যখন আত্মহত্যার কথা ভাবছেন ঠিক এমন সময়েই বসন্তের বাতাসের মতো আগমন হয় আদিত্যর। ‘ইন্ডিয়ান আইডল’-এর মঞ্চেই একে অন্যের সঙ্গে আলাপ তাঁদের। গাঢ় হয় বন্ধুত্ব। অনস্টেজ আদিত্যতো প্রপোজও করে বসেন নেহাকে। তাঁদের বিয়ে নিয়ে  ফ্যানেরা যখন রীতিমতো আবেগাপ্লুত, ঠিক এমন সময়েই উদিতের এই সত্যি ফাঁস হতাশ করেছে ফ্যানেদের।

 

Leave A Reply

Your email address will not be published.