The news is by your side.

বিসিবি বললে অধিনায়কত্ব ছেড়ে দিব: মাশরাফী

0 29

 

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের কেন্দ্রীয় চুক্তি থেকেও নিজের নাম সরিয়ে নিয়েছেন বাংলাদেশ দলের ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফী বিন মোর্ত্তজা।

তকাল রোববার বিসিবি প্রধান নাজমুল হাসান পাপন জানান, মাশরাফী নিজের ইচ্ছাতেই কেন্দ্রীয় চুক্তি থেকে নাম সরিয়ে নিয়েছে।

জাতীয় দলের একজন অধিনায়ক বোর্ডের কেন্দ্রীয় চুক্তিতে নেই এমন নজীর বোধহয় আর ঘটেনি কোথাও।

আজ সোমবার বঙ্গবন্ধু বিপিএলে ঢাকা প্লাটুন এলিমিনেটরের ম্যাচ থেকে বিদায় নিয়েছে চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের কাছে ৭ উইকেটে হেরে।
বাদ পড়ার দিনে সংবাদ সম্মেলনে আসেন নড়াইল এক্সপ্রেস। স্বাভাবিক ভাবেই চুক্তির প্রশ্ন এসে যায়।

চুক্তি থেকে নিজের নাম সরিয়ে নেয়ার পর কি অধিনায়কের দায়িত্ব থেকেও সরে দাঁড়াবেন কী না এমন প্রশ্নে মাশরাফী বলেন, নির্বাচকরা যা ভালো মনে করেন।

‘জাতীয় দলে আগে অধিনায়ক বাছাই হবে, এরপরে দল গঠন করা হবে। আমি তো আগের দিন পরিষ্কার বলে দিয়েছি যে, নির্বাচকরা যা ভাববে। বাংলাদেশের তো সবই হয়। নির্বাচকরা যা ভাববে তাই করবে। অধিনায়কত্ব যদি বিসিবি থেকে এখনই বলে ছেড়ে দিতে, ছেড়ে দিব কোনও সমস্যা নেই।’

বিসিবি বললে ছাড়বেন, কিন্তু নিজের সিদ্ধান্ত নিশ্চয়ই আছে। মাশরাফি অবশ্য সেটি বলতে চাইলেন না, ‘আমার সিদ্ধান্ত আমার কাছে থাক।’

কাল বিসিবি সভাপতি বলেছেন, ‘আমরা চাইব ওকে (মাশরাফি) খুব ভালো করে বিদায় দিতে। এমনভাবে বিদায় দেওয়া হবে যেটা ওর আগে বাংলাদেশের কেউ পায়নি, পরেও কেউ পাবে না। এখন সে যদি চায় হবে, না হলে তো কিছু করার নেই।’

বিসিবির এই জাঁকালো বিদায় মাশরাফি নিতে চান না। তবে বিসিবিকে একটা ধন্যবাদ দিয়ে রাখলেন ঢাকা প্লাটুন অধিনায়ক, ‘কালও ক্রিকেট বোর্ডের চুক্তিবদ্ধ ক্রিকেটার ছিলাম। আজ থেকে আর নেই। সব সময় ভাবি ক্রিকেট বোর্ড খেলোয়াড়দের অভিভাবক। তাদের বিপক্ষে যাওয়াটা কখনই গর্বের কিছু মনে করিনি এবং কখনো মনেও করি না। ক্রিকেট বোর্ডকে আন্তরিক ধন্যবাদ যে তারা চেয়েছে আমার বিদায়ী ম্যাচ আয়োজন বা অবসরের বিষয়ে চিন্তা করেছে। পরিষ্কার বার্তা দিচ্ছি, আমার ইচ্ছা নেই। তবে যদি কখনো সুযোগ আসে তাহলে দেখা যাবে। আবার কার কাছ থেকে বিদায় নেব, সেটাও কথা। আমার কোনো ইচ্ছে নাই।’

 

Leave A Reply

Your email address will not be published.